অবশেষে সৌরশক্তির বিমান উড়ল আকাশে

সৌরশক্তিতে ভর করে দুনিয়া ভ্রমণ। সেই লক্ষ্যেই সোমবার সকালে আবু ধাবি থেকে ছাড়ল স্যুইত্‍জারল্যান্ডে নির্মিত প্রথম সৌর চালিত বিমান। জ্বালানি ছাড়াই গোটা বিশ্ব ঘুরে বেড়াবে এই বিমান। পেরোবে দুই মহাসাগর।

সোলার ইমপাল্স ২ নামে বিমানটি আবু ধাবির আল বাতিন বিমানবন্দর থেকে সোমবার সকালে আকাশে ওড়ে। এর বিশ্বযাত্রার পথে পালা করে বিমানটি চালাবেন দুই পাইলট। পুরনো প্রযুক্তি ছেড়ে দূষণহীন পৃথিবী গড়ার লক্ষ্যেই এই বিমান বলে জানিয়েছেন স্যুইস পাইলট অ্যান্দ্রে বোর্সবার্গ। কার্বন ফাইবারে তৈরি বিমানটির ওজন মাত্র ২,৩০০ কিলোগ্রাম, যা একটি চার চাকার গাড়ির সমান। এর দুই ডানায় রয়েছে ১৭,২৪৮টি সোলার সেল। যা সৌরশক্তি উত্‍পন্ন করে চলেছে।

প্রথম টেক অফ করার পর ১০ ঘণ্টা উড়ে বিমানটি ওমানে পৌঁছবে। সেখান থেকে পরবর্তী গন্তব্য ভারত। এ দেশে দু-জায়গার থামার পর যাবে চিন ও মায়ানমার। এরপর প্রশান্ত মহাসাগর পেরিয়ে পৌঁছবে হাওয়াই দ্বীপপুঞ্জ। সেখান থেকে ফিনিক্স, অ্যারিজোনা এবং নিউ ইয়র্ক। নিউ ইয়র্কের জন এফ কেনেডি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে টেক অফ করে আতলান্তিক মহাসাগর পেরিয়ে নামবে ইওরোপ অথবা মরক্কো। যাত্রা শেষ হবে ফের আবু ধাবিতেই। জুলাইয়ের শেষ বা আগস্টে দুনিয়া ভ্রমণ শেষ হবে বলে আশা করা হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.