টাইম ম্যাগাজিনের প্রচ্ছদে এবার পবিত্র কোরআনের আয়াত

time-inn20161010191919টাইম ম্যাগাজিন। আমেরিকার সংবাদভিত্তিক বহুল প্রচারিত একটি ম্যাগাজিন। রাজনীতি এবং সমসাময়িক ঘটনাপ্রবাহকে ঘিরে নানা বিষয়ের অালোচনাসহ প্রতি সপ্তাহে মুদ্রিত হয় এটি। প্রচারসংখ্যার দিক থেকে বিশ্বের সর্ববৃহৎ সাপ্তাহিক টাইম ম্যাগাজিন। টাইমের পাঠকসংখ্যা প্রায় আড়াই কোটি। তন্মধ্যে ২ কোটিই আমেরিকান।

১৯২৩ সাল থেকে নিয়মিতভাবে প্রকাশিত হচ্ছে টাইম। এবার টাইম ম্যাগাজিনের (অক্টোবর ১৭, ২০১৬। ভলিউম ১৮৮, ক্রমিক নং ১৫) চলতি সংখ্যার প্রচ্ছদে পবিত্র কোরআনের একটি আয়াতের ইংরেজি তরজমা উদ্ধৃত করা হয়েছে। উল্লেখিত আয়াতে বলা হয়েছে, ‘যে একজন মানুষের জীবন বাঁচালো, সে সমগ্র মানবজাতিকে বাঁচালো।’

সিরিয়ার হোয়াইট হেলমাট নামক একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার জন্য নিবেদিত এক রিপোর্টে এ আয়াত উদ্ধৃত করা হয়। এই স্বেচ্ছাসেবীরা সিরিয়ার হাজার হাজার বেসামরিক লোকজনের জীবন রক্ষায় কাজ করে যাচ্ছে।

সিরিয়ার বিভিন্ন অঞ্চলে বোমাবর্ষণের পর তারা ছুটে এসে ধ্বংসস্তূপের ভেতর থেকে লোকদের উদ্ধার করে। তারা বোমা হামলায় বিধ্বস্ত ভবনগুলো থেকে হাজার হাজার মানুষকে উদ্ধার করেছে। তাদের এমন কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ গ্রুপটি ইতোমধ্যেই রাইট লিভলিহুড অ্যাওয়ার্ড পেয়েছে গত মাসে। গ্রুপটির মানবসেবার কাহিনী চলতি মাসের প্রধান রিপোর্টে তুলে ধরেছে বিশ্বের অন্যতম প্রভাবশালী টাইম ম্যাগাজিন।

টাইম ম্যাগাজিনের প্রচ্ছদের সূরা আল মায়েদার ৩২ নম্বর আয়াতের তরজমা ইংরেজি ভাষায় উল্লেখ করা হয়েছে। ওই আয়াতে আল্লাহতায়ালা ইরশাদ করেন, ‘যে নরহত্যা অথবা পৃথিবীতে ধ্বংসাত্মক কার্যকলাপ করার কারণ ব্যতীত যদি কেউ কাউকে হত্যা করে সে যেন দুনিয়ার সব মানুষকেই হত্যা করলো। যদি কেউ একটি প্রাণ রক্ষা করে, সে যেন সব মানুষের প্রাণ রক্ষা করলো।’

কোরআনে কারিমের এ আয়াতে একটি গুরুত্বপূর্ণ সামাজিক বাস্তবতার প্রতি ইঙ্গিত করা হয়েছে। তা হলো- মানুষের সমাজটা পরিপূর্ণ একটি দেহের মত।

আর ইসলাম মানুষকে এটাই শিক্ষা দেয় যে, সমাজের প্রতিটি মানুষ ওই দেহের একেকটি অঙ্গ। এই সমাজের একটি অঙ্গের কোনো রকমের ক্ষতি হয় তার প্রভাব অপর অঙ্গের ওপর সুস্পষ্ট হয়ে যায়। একইভাবে কেউ যদি কোনো নিরপরাধের রক্তে নিজের হাত রঞ্জিত করে সে অপর নিরপরাধী মানুষকেও আক্রমণ করতে পারে নির্দ্বিধায়। কেননা সে একজন খুনি; তার কাছে নিরপরাধ মানুষের আলাদা কোনো গুরুত্ব নেই।

এভাবেই মানুষের জীবন রক্ষার জন্য কোরআন ব্যাপক গুরুত্ব দিয়েছে। এমনকি একজনকে হত্যা করা মানে একটি সমাজকে হত্যা করা বলে মনে করে কোরআন।