মাথায় হিজাব পড়ায় লন্ডনের রাস্তায় এক মুসলিম মহিলাকে বেদম মারধর

মাথায় হিজাব পড়ায় লন্ডনের রাস্তায় এক মুসলিম মহিলাকে বেদম মারধর করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছে এক নারী।চড়-থাপড়-কিল-ঘুসি-লাথি কিছুই বাদ যায়নি তাঁর উপর।যাঁরা এই বর্ণবাদী হামলা চালিয়েছেন, তাঁরাও কিন্তু মহিলাই। স্কটল্যান্ড ইয়ার্ড এই ঘটনায় দুই মহিলাকে গ্রেফতার করেছে।

আক্রান্ত ওই মুসলিম মহিলার দুই সন্তান পড়েন দক্ষিণ লন্ডনের একটি প্রাইমারি স্কুলে। তাদের আনতেই গত বৃহস্পতিবার বিকেলে তিনি স্কুলে গিয়েছিলেন। স্কুলের রাস্তাতেই দুই সন্তানের মাকে ঘিরে ধরেন কয়েক জন মহিলা। মাথায় স্কার্ফ কেন জানতে চেয়ে, অশ্রাব্য ভাষায় তাঁকে গালিগালাজ করা হয়। এখানেই থেমে না-থেকে শুরু হয় বেমক্কা মারধর।মুসলিম ওই মহিলার কথায়, গালিগালাজের মধ্যেই একজন আমার মাথার স্কার্ফটা টেনে খুলে দেয়। এর পরই শুরু হয় এলোপাথাড়ি কিল-চড়-ঘুসি। লাথিও মারতে থাকে। মাথার গোছা গোছা চুল টেনে ছিঁড়ে দেয়।

লন্ডন পুলিশ সূত্রে খবর, স্কুলের কাছেই ক্রয়ডনের ডার্বি রোডের ওপর এই হামলা হয়। অন্য এক পড়ুয়ার অভিভাবক এসে আক্রান্ত মহিলাকে উদ্ধার করেন। মেট্রোপলিটন পুলিশ জানিয়েছে, এই হামলার ঘটনায় দু-জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। পরে যদিও তারা জামিন পেয়ে যায়। পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.