উপার্জনক্ষম সকল ব্যক্তিকে কর দিতে হবে : অর্থমন্ত্রী

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত চলেছেন, উপার্জনক্ষম সব ব্যক্তিকে করের আওতায় নিয়ে আসা হবে। একইসঙ্গে সব বাড়ির মালিকের জন্য টিআইএন বাধ্যতামূলক করা হবে।
শনিবার বেসরকারি গবেষণা প্রতিষ্ঠান পলিসি রিসার্চ ইন্সস্টিটিউট (পিআরই) আয়োজিত ‘সপ্তম পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনার আলোকে ২০১৫-১৬ অর্থবছরের বাজেট’ শীর্ষক আলোচনা সভায় এসব কথা বলেন তিনি।
অর্থমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশে ১৬ কোটি মানুষ বাস করে। এর মধ্যে মাত্র ১১ লাখ লোকের কর দেওয়ার বিষয়টি লজ্জাজনক ও অপ্রত্যাশিত। দেশের উপার্জন যোগ্য সব মানুষকে করের আওতায় আনা হবে।
তিনি বলেন, সব চাকরিজীবীদের বেতনের ওপর কর নির্ধারণ করা হবে। করের হার বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে ভাগ করে প্রত্যেক মানুষকে করের আওতায় নিয়ে আসা হবে।
অর্থমন্ত্রী বলেন, জাতীয় রাজস্ব বোডের্র অডিট অনুযায়ী দেশে প্রায় ৪০ লাখ বাড়ি রয়েছে; যার মালিকরা কর দিতে সক্ষম। তবে দেশে করদাতার হার মাত্র ১১ লাখ। প্রত্যেক বাড়ির মালিককে করের আওতায় নিয়ে আসতে এনবিআরকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। কর না দিয়ে কেউ পার পাবেন না।
গত ছয়টি বাজেটে করনীতি ছিল গতানুগতিক- এমন মন্তব্য করে মুহিত বলেন, এবার এ নীতিতে বড় পরিবর্তন আসবে। এবারের বাজেটে উৎসে করকে গুরুত্ব দেওয়া হবে। পরোক্ষ করের পরিবর্তে প্রত্যক্ষ করকে রাজস্ব আহরণের প্রধান মাধ্যম করা হবে। করের জন্য বিভিন্ন স্তর তৈরি করে প্রত্যেক মানুষকে এর আওতায় নিয়ে আসা হবে।
করের হার বৃদ্ধির বিষয়ে তিনি বলেন, করের হার বাড়ানোর আগে দেশের আর্থসামাজিক অবস্থা ও ব্যবসায়ীদের বিষয়ে বিবেচনা করতে হয়। সিগারেট থেকে সবচেয়ে বেশি কর আসলেও তাতে স্বাস্থ্য ঝুঁকির বিষয় বিবেচনায় কর বাড়ানো যায়। যেকোনো দেশের তুলনায় বাংলাদেশে টেলিফোন শিল্পে করের হার বেশি। বিটিআরসির সঙ্গে কথা বলে এ বিষয়ে নতুন কিছু করা যায় কি না তা ভেবে দেখা হচ্ছে।
বাজেট আকার নিয়ে অর্থমন্ত্রী বলেন, বাজেট উচ্চবিলাসী নয় স্বপ্নবিলাসী। আমি স্বপ্ন দেখতে পছন্দ করি। আগামী অর্থবছরের বাজেট ৩ লাখ টাকার কাছাকাছি হবে। আগামী ৫ বছর পর দেশের বাজেট ৫ লাখ কোটি টাকা ছাড়াবে।
পিআরইয়ের নির্বাহী পরিচালক ড. আহসান এইচ মনসুরের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় মেট্রোপলিটন চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রিজের (এমসিসিআই) সভাপতি নাসিম মনসুর, বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ড. ফরাস উদ্দিন আহমেদ, সেন্টর ফর পলিসি ডায়ালগ (সিপিডি) নির্বাহী পরিচালক ড. মোস্তাফিজুর রহমান, পরিকল্পনা কমিশনের সদস্য ড. শামসুল আলমসহ অর্থনীতিবিদরা উপস্থিত ছিলেন।

One thought on “উপার্জনক্ষম সকল ব্যক্তিকে কর দিতে হবে : অর্থমন্ত্রী

Leave a Reply

Your email address will not be published.